পাঠকের কথা ও মতামত

পাঠকের কথা ও মতামত

১) বিশ্ব মারকাজ তত্ত্বাবধায়নে মুফতি আতাউর রহমান সাহেব রহঃ এর আল্-মাদ্রাসাতু মুঈনুল ইসলাম এর যুগান্তকারী কার্যক্রমের অধ্যায়ের শুরু —পাঠকের কথা ও মতামত
————————–————————–———————-
মাশাআল্লাহ, এবার সরাসরি বস্তি নিজামুদ্দীন সারা বিশ্বের দাওয়াত ও তাবলীগের আলমি মারকাজের (নিউ দিল্লি) তত্বাবধায়নে এবং কাকরাইলের প্রতিনিধির নিগ্ৰানিতে দাওয়াত ও তাবলিগের সাথী সহ যেকোন বয়সের বয়সভিত্তিক ইলমের পিপাসিত হযরতদের জন্য ৪০দিন, ৪মাস এবং ৫বছর মেয়াদের মাদ্রাসার কার্যক্রম শুরু হতে যাচ্ছে……..

যাদের সিলেবাস নিয়া হচ্ছে,
সাউথ আফ্রিকা, ইংল্যান্ড, কানাডা, ইন্ডিয়া, পাকিস্তান, অস্ট্রেলিয়া, আমেরিকা, ঐ সমস্ত দেশের যারা স্কলার, এবং দেওবন্দ মাদ্রাসার পৃষ্ঠপোষকতায় তারা ইংলিশ, আরবি, উর্দু এই তিনটি ভাষাকে সামনে রেখেই কোরআন হাদিস শেখার মাধ্যম দিয়ে তারা যুগ-উপযোগী আলেম ওলামা হচ্ছেন এবং উম্মতকে সঠিক দিক নির্দেশনা দিয়ে সঠিক পথে নিয়ে যাচ্ছেন এমন আলেম-ওলামা তৈরি করার প্রক্রিয়া নিয়ে যারা সফলকাম হচ্ছেন তাদেরই সিলেবাসকে সামনে রেখে এই মাদ্রাসার পাঠ্যসূচি তৈরি করা হচ্ছে,

হজরত মাওলানা ইলিয়াস সাহেব রহমাতুল্লাহ আলাইহি বলেছেন… দাওয়াত হবে আমার তরতিবে আর তালিম হবে থানবী(রহঃ) তরতীবে, তাই ৪মাসের মেয়াদের পাঠ্য সিলেবাসের অন্তর্ভুক্ত করা হবে থানবী রহঃ এর বেহেস্তি গহর(বেহেস্তি জেওর্) থাকছে, যেনো অল্প সময়ের মধ্যে তার প্রয়োজনীয় ফরজে আইনের ইলমের জরুরী বিষয় সমূহ গুলো শিক্ষে নিতে পারেন,

এখানে যেকোনো বয়সের, যেকোনো স্তরের, যেকোন পদবীর, যেকোনো ক্লাসের যেমন স্কুল,কলেজ, ভার্সিটি অথবা যেকোনো প্রতিষ্ঠানে পড়ুয়া জেনারেল ছাত্র, চাকুরীজীবী হজরতদের জন্য সহজ ব্যবস্থাপনা আছে,

যাদের সময়ে অনেকে স্বল্প মানে যারা সময় পাচ্ছেন না মাদ্রাসায় দীর্ঘ সময় থেকে পড়ার জন্য, তাদের জন্য ৪০দিন এবং ৪মাসের কোর্স রাখা হয়েছে.

আলহামদুলিল্লাহ….
উক্ত মাদ্রাসার কার্যক্রম শুরু হয়ে যাচ্ছে.. বর্তমান করোনা ভাইরাসের কারনে সরকারের দেয়া স্বাস্থ্যবিধি মেনে কার্যক্রম সামনে আগানো হবে, বর্তমানে শুধু ভর্তি কার্যক্রম চলছে, সরকারের পক্ষ থেকে যখন অন্যান্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ মাদ্রাসার ক্লাস শুরু করার ফয়সালা করা হবে ঠিক তখনই আমাদের মাদ্রাসার ক্লাস শুরুর কার্যক্রম হবে,

বিঃদ্রঃ বর্তমান লকডাউনের কারনে কলেজ ভার্সিটির যারা বাসায়ে বসে অনলাইনে ক্লাস করছেন তাদের জন্য সুবর্ণ সুযোগ আছে, এরা উক্ত মাদ্রাসার আবাসিকে থেকে নিজের অনলাইনের ক্লাস শেষ করে বাকি সময় তিনি মাদ্রাসার ক্লাস করতে পারবেন, আপনি মাদ্রাসায় জেনারেল ছাত্রদের জন্য থাকা খাওয়ার খরচ অনেক কম রাখা হচ্ছে,

আমাদের মুখ্য উদ্দেশ্য হল যেন কর্মহীন ধর্ম এবং ধর্মহীন কর্ম বাদ দিয়ে সাহাবায়ে কেরাম রাদিয়াল্লাহু আনহুম আজমাইনদের ইলম শিখার তরতিব এবং ইলমের ব্যবহারের তরতিব নিজ নিজ জিন্দেগীতের সাথে মিলিয়ে চলতে পারে,

তাই যেকোনো তথ্য বা সংবাদ জানার জন্য
যোগাযোগ করুন….

মাওলানা আব্দুর রাজ্জাক সাহেবঃ
উক্ত মাদ্রাসার মুহতামিম সাহেব
মোবাইলঃ +8801678330033

মাদ্রাসার অফিসের সাথে যোগাযোগঃ
মোবাইলঃ +8801511351404

বিশেষ কারনে যোগাযোগ
মাওলানা আব্দুল্লাহ মনসুর কাসেমী সাহেবঃ
দাওয়াতে ও তাবলীগের বিশ্ব মারকাজ নিউ দিল্লি ও কাকরাইলের প্রতিনিধি এবং উক্ত মাদ্রাসার সিনিয়র শিক্ষক,
মোবাইলঃ +8801674085150

মাওলানা আব্দুল কাদের সাহেবঃ
মাদ্রাসার শিক্ষক,
মোবাইলঃ +8801638236919, +8801789406599


২) লাস্ট ২ টা বছর আমাদের এতায়াতের সাথীদের এতো অপমান করলো। এতো মারধর করলো, এতো মিথ্যা অপবাধ, দিলো,
তারপর ও আলহামদুলিল্লাহ আলাহ পাকের শুকরিয়া, আল্লাহ তায়ালার ফযল, আর-করম আল্লাহ তায়ালা আমাদের বড়দের কে ধৈর্য, আখলাক, আর দ্বীনের যেই বুঝ দিয়েছেন, তার ধারা আমাদের বড় রা তাদের, ধৈর্য আখলাক, আর দ্বীনকে সাথে নিয়ে সব কিছু কে নিচে রেখে আগে দ্বীনের মেহনত আর ত্বাকাজা কিভাবে পুরো শুধু সেই ফিকিরেই ছিলেন। তারপর যখন এই লক ডাউনের মধ্যে আমাদের আমীর সাহেব ত্বাকাজ দিলেন বেশি বেশি ওলামাকেরাম এর সহবতে যাবেন, তাদের বাহ্যিক জোরুরাত কে পারলে পূরা করবেন, এবং সব শেষে ত্বাকাজ আসলো, –
মসজিদ ওয়ারি সকল ওলামাকেরাম কে দাওয়াত করে আপ্যায়ন করার।
আমাদের সাথীরা অতীতের সকল ব্যাথা অপমান কে ভুলে আল্লাহ এর জন্য দ্বীনের ত্বাকাজা পূরন করলো।
হুম ভাই এই টাই মেহনত , আল্লাহ তায়ালা আমাদের বড়দের উপর রাজি খুশি হন, দাওয়াত তাবলীগের এর মেহনত কে আল্লাহ কবুল করুক। সাথে সাথে আল্লাহ আমাদেরকে আমাদের ওলামাকেরাম কে সাথে নিয়ে এই হরকত কে সামনে রেখে কাম কে পূরা করার তৌফিক দিন।

MD Tamim Hossain
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *